শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১

শাহজাদপুরে স্ত্রীর শরীরের অর্ধেকাংশ কেরোসিন ঢেলে পুড়িয়ে দিয়েছে পাষন্ড স্বামী

  •  
  •  
  •  
  •  

জাহিদ হাসান,শাহজাদপুর (সিরাজগঞ্জ)প্রতিনিধিঃ সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার পোতাজিয়া ইউনিয়নের আলোকদিয়ার গ্রামে স্ত্রী আঁখি খাতুন (২৫) এর শরীরের অর্ধেকাংশে কেরোসিন ঢেলে আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দিয়েছে পাষন্ড স্বামী ভোলা ।

জানা যায়, প্রায় ৯ বছর আগে একই উপজেলার রুপবাটি ইউনিয়নের ভুলবাকুটিয়া গ্রামের দিনমজুর বরকত আলীর মেয়ে আঁখি খাতুনকে আলোকদিয়ার গ্রামের তয়জাল নেতার পুত্র সিরাজুল ইসলাম ওরফে আনোয়ার হোসেন ভোলার সাথে বিয়ে দেয়। বিয়ের কয়েক বছরে কোন সন্তানের মা না হওয়ায় স্ত্রী আঁখি খাতুনের উপরে চলতে থাকে অমানবিক নির্যাতন। এর জের ধরে দুপুর বেলা ভাত খেতে গিয়ে তরকারি স্বাদ না হওয়ায় তরকারি ঢেলে ফেলে দিয়ে স্ত্রী আখিঁ খাতুনের নাভী থেকে দুপায়ের গোড়ালি পর্যন্ত কেরোসিন ঢেলে আগুণ ধরিয়ে দেয়। এসময় আখিঁর চিৎকারে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এলে গোপনে বাড়ীতে চিকিৎসা দেয়। পরে আখির বাবার বাড়ীর লোকেরা মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে বেড়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। বর্তমানে আখিঁ হাসপাতালে মৃতুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে।

আখিঁর মা সাংবাদিকদের জানান, ইতিপূর্বে অনেকবার তার মেয়েকে স্বামী ভোলা সহ নয়ন,লিটন,শাহান নির্যাতন করে হত্যার চেষ্টা করেছিল। এবারও কেরোসিন ঢেলে আগুনে পুড়িয়ে বাড়িতে রেখে গোপনে চিকিৎসা করার চেস্টা করছিল। খবর পেয়ে আমরা আমাদের মেয়েকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করি। আমরা
দরিদ্র, মামলা করমু বাজান, টাহা পয়সা নাই। আমার মেয়ের শরীর পোড়ানোর সাথে জড়িত স্বামী ভোলার দৃষ্টান্ত মুলক শাস্তি চাই। এ ব্যাপারে চিকিৎসাধীন আঁখি জানান, তার স্বামী নেশা করে, বিভিন্ন অপরাধের সাথে জড়িত। তাই তাকে হত্যা করতে চেয়েছিল। স্বামী ভোলার কঠিন শাস্তি দাবী করেন।

শেয়ার করুন »

লেখক সম্পর্কে »

মন্তব্য করুন »

x